logo
   প্রচ্ছদ  -   অর্থ-বাণিজ্য

বিশ্বে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে এক নম্বরে বাংলাদেশ : প্রধানমন্ত্রী
Posted on Sep 01, 2019 12:36:34 PM.

বিশ্বে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে এক নম্বরে বাংলাদেশ : প্রধানমন্ত্রী

বাংলাদেশের অগ্রগতির কথা তুলে ধরে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বিশ্বজুড়ে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে আজকে বলতে গেলে বাংলাদেশ এক নম্বর অবস্থানে চলে এসেছে। 
গতকাল শনিবার বিকেলে গণভবন প্রাঙ্গণে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, ২০০৮ সালের নির্বাচনের পর ১০টা বছরের মধ্যে আজকে বাংলাদেশ সারা বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল। আজকে বাঙালিরা, যারা প্রবাসে থাকেন, তারাও সবসময় এ কথা বলেন যে, একসময় বাংলাদেশ শুনলেই আমাদের অনেক কথা শুনতে হত। আজকে বাংলাদেশ শুনলে গর্বে আমাদের বুক ভরে যায়। যখন বলে যে, বাংলাদেশ আজকে উন্নয়নের মহাসড়কে এগিয়ে যাচ্ছে। খবর বাংলানিউজের।
শেখ হাসিনা বলেন, সারা বিশ্বে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অর্জনে আজকে বলতে গেলে বাংলাদেশ এক নম্বর অবস্থানে চলে এসেছে। এই অর্জনগুলো করতে পেরেছি দীর্ঘ সংগ্রামের পথ বেয়ে। তিনি বলেন, যে জাতির জন্য আমার বাবা জীবন দিয়ে গেছেন, কষ্ট করে গেছেন, তাদের জন্য কতটুকু করতে পেরেছি সেটাই বিবেচনা করেছি। নিজে কী পাবো, না পাবো বা ছেলে-মেয়ে কী পাবে, না পাবে সে চিন্তা আমাদের ছিলো না। আমরা দু’টি বোন সর্বান্তকরণে বাংলাদেশের মানুষের ভাগ্য গড়বার জন্য সব কিছু ত্যাগ করে আমরা কাজ করে যাচ্ছি।
মুক্তিযুদ্ধ ও স্বাধীনতা পরবর্তী সময়ে বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ নিয়ে বিভিন্ন নেতিবাচক মন্তব্যের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আজকের বাংলাদেশ, যে বাংলাদেশ স্বাধীনতার পর অনেকে বলেছিল এই স্বাধীন হয়ে কী হবে? অর্থাৎ এ দেশের কোনো ভবিষ্যতই নেই। অর্থাৎ ধ্বংসপ্রাপ্ত দেশ হবে, ব্যর্থ রাষ্ট্র হবে।
তিনি বলেন, আমার একটা জেদ ছিল, যে করেই হোক এই বাংলাদেশকে এমনভাবে গড়ে তোলা যেন বিশ্ববাসী অবাক হয়ে তাকিয়ে থাকে। যে বাঙালি অস্ত্র হাতে নিয়ে বিজয় অর্জন করতে পারে, সে বাঙালি দেশকেও গড়তে জানে, গড়তে পারে।
আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, সেটা পারে কারা, যারা সংগ্রামের সঙ্গে জড়িত, আন্দোলনের সঙ্গে জড়িত, বিজয় অর্জনের সঙ্গে জড়িত সেই রাজনৈতিক দল যদি সরকারে আসে। অর্থাৎ যে জাতির পিতার নেতৃত্বে আমরা সংগ্রাম করেছি তারা যদি ক্ষমতায় থাকে শুধুমাত্র তারাই পারবে দেশ গড়তে।
শেখ হাসিনা বলেন, যারা স্বাধীনতা বিরোধী, আল বদর রাজাকারদের পদলেহন করে, খোষামোদী, তোষামোদী করে, পরাজিত শক্তির পদলেহন করে তারা দেশকে উঠতে দেবে না, তারা দেশকে উন্নত দেশ হিসেবে গড়তে দেবে না। কারণ তারা তো পরাজিত শক্তির দোসর, তাদেরই তারা পদলেহন করে, কাজেই তারা কেন চাইবে বাংলাদেশ গড়ে উঠুক। যে কারণে যখনই আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এসেছে দেশের উন্নয়ন হয়েছে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাত ধরে বাংলাদেশের দ্রুত এগিয়ে যাওয়া রুখে দিতে ১৫ আগস্টের হত্যাকাণ্ড বলে মনে করেন প্রধানমন্ত্রী।
বঙ্গবন্ধুকন্যা বলেন, এ হত্যাকাণ্ড কেন? তিনি এ দেশকে স্বাধীন করে দিয়ে যান। এই স্বাধীনতা অর্জনের পরে মাত্র সাড়ে ৩ বছর তিনি হাতে সময় পেয়েছিলেন। এই সাড়ে তিন বছরের মধ্যে একটা যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ, এই যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশকে তিনি যেভাবে গড়ে তুলেছিলেন এটাও একটা বিরল ইতিহাস।
আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন ছাত্রলীগের সভাপতি মো. রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন। সঞ্চালনা করেন ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী। অনুষ্ঠানে ছাত্রলীগের প্রকাশনা ‘মাতৃভূমি’র মোড়ক উন্মোচন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা




  এই বিভাগ থেকে আরও সংবাদ

   বাংলাদেশে ৮৫ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগের ঘোষণা আসছে
   উন্নয়নের সূচকে বাংলাদেশের সাফল্য অভাবনীয়
   বাংলাদেশের সঙ্গে বাণিজ্য সম্পর্ক বাড়াতে পিটিএ চুক্তি করতে আগ্রহী লেবানন
   কানাডা-বাংলাদেশ বাণিজ্য ফোরামে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির আশা টিপু মুনশির
   তৈরি পোশাকখাতে বাংলাদেশ বিশ্বে নেতৃত্ব দিচ্ছে : শিল্পমন্ত্রী
   ফেসবুকে ১০০ টাকার ভুয়া নোটের ছবি
   বাণিজ্যযুদ্ধের প্রভাব দক্ষিণ এশিয়ায়
   এডিআরের মাধ্যমে ১৪২ কোটি টাকার রাজস্ব আয়
   সবজির বাজার চড়া, কমেছে মুরগির দাম
   পোশাক রপ্তানি প্রবৃদ্ধি: ভিয়েতনামের ওপরে বাংলাদেশ
   বাণিজ্যের প্রসার ঘটাতে ডিজিটাল পদ্ধতিতে ব্যবসায়ীদের সেবা প্রদান করা হচ্ছে : বাণিজ্যমন্ত্রী
   ১০ দিনে ১৭৫ কোটি ডলারের রেমিট্যান্স
   জুলাই মাসে রেমিট্যান্স এসেছে ১৬০ কোটি ডলার
   কোরবানির পশুর চামড়ার দাম নির্ধারণ
   শুক্র ও শনিবার যেসব এলাকায় খোলা থাকবে ব্যাংক
   সময় বাড়লো অনলাইনে ভ্যাট নিবন্ধনের
   ১০০ টাকার প্রাইজবন্ডের ৯৬তম ড্র অনুষ্ঠিত
   সদ্যসমাপ্ত অর্থবছরে ২ লাখ ২৩ হাজার কোটি টাকার রাজস্ব আয়
   সঞ্চয়পত্রে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত উৎসে কর ৫ শতাংশ
   হজে এবার ৮০০ কোটির ওপরে আয় করবে বিমান
   সি পার্লের মুনাফা বেড়েছে ৫৪ শতাংশ
   ৪ হাজার কোটি ডলারের মাইলফলক ছাড়িয়েছে পণ্য রপ্তানি
   বাণিজ্য ঘাটতি ১৪৬৫ কোটি ডলার
   আমেরিকা-চীন বাণিজ্য যুদ্ধে লাভের সম্ভাবনা বাংলাদেশের
   বাড়ছে সোনার দাম
   ফের বাণিজ্য আলোচনায় বসবে চীন-যুক্তরাষ্ট্র
   বন্ড সুবিধা পাবেন স্বর্ণ ব্যবসায়ীরা: এনবিআর চেয়ারম্যান
   আমদানি করা গুঁড়ো দুধে ৫০ শতাংশ শুল্ক আরোপের প্রস্তাব
   যেসব পণ্যের দাম বাড়বে ও কমবে
   মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা ২ হাজার টাকা বৃদ্ধি


  পুরনো সংখ্যা